শনিবার, ১৮ মে, ২০২৪

মুজিব সিনেমা দেখে কান্নায় ভেঙ্গে পড়লেন ভক্তরা


১৪ অক্টোবর ২০২৩, ৪:৫০ অপরাহ্ণ 

মুজিব সিনেমা দেখে কান্নায় ভেঙ্গে পড়লেন ভক্তরা

সিনেমা ‘মুজিব: একটি জাতির রূপকার’ |

  গুগল নিউজে ফলো করে আজকের প্রসঙ্গ এর সাথে থাকুন

দীর্ঘ অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে গতকাল শুক্রবার দেশজুড়ে ১৫৩ সিনেমা হলে মুক্তি পেয়েছে বহুল আলোচিত সিনেমা ‘মুজিব: একটি জাতির রূপকার’। এর আগে গত বৃহস্পতিবার (১২ অক্টোবর) সকালে বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভে সিনেমাটির প্রিমিয়ার প্রদর্শনী উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

উদ্বোধনের পর প্রধানমন্ত্রী ‘মুজিব’ সিনেমাটি উপভোগ করেন এবং এর পাশাপাশি মুক্তির ঘোষণাও দেন। সেই সঙ্গে ‘মুজিব’ চলচ্চিত্রটির সঙ্গে সংশ্লিষ্ট নির্মাতা, কুশলী ও শিল্পী সবার প্রতি প্রধানমন্ত্রী ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

মুজিব: একটি জাতির রূপকার সিনেমাটি মুক্তির পর থেকেই দর্শকমহলে দারুণ সাড়া ফেলেছে। শুধু দর্শকই নয়, প্রেক্ষাগৃহে ছবিটি উপভোগের পর আবেগহীন হয়ে পড়েছেন তারকারাও।

গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় রাজধানীর এসকেএস টাওয়ারে অনুষ্ঠিত প্রিমিয়ার শো‌তে হাজির হয়েছিলেন অভিনেত্রী আশনা হাবিব ভাবনা। এসময় সিনেমাটি দেখে সাংবাদিকদের ক্যামেরার সামনেই কান্নায় ভেঙে পড়েন তিনি।

কেমন ছিল মুজিব: একটি জাতির রূপকার দেখার অভিজ্ঞতা, এমন প্রশ্নে আবেগহীন হয়ে পড়েন এই অভিনেত্রী। এসময় নিজেকে সামলে বলেন, খুবই ভালো ছবি। জাতির পিতাকে নিয়ে ছবি তাই খুব ইমোশনাল হয়ে পড়েছি। কথা বলতে পারছি না। সবার অভিনয় খুব ভালো। বিশেষ করে শেষটাতে ভয়ানক অনুভূতি হয়েছে।

একই সময়ে চিত্রনায়িকা নিপুণ আক্তার বলেন, দেখতে পাচ্ছেন আমার চোখ থেকে পানি পড়ছে। শেষটা দেখে আর কিছু বলতে পারছি না। আমাদের এই প্রজন্মের কাছে অনুরোধ সবাই সিনেমাটা দেখবেন। এখন থেকে মনে হচ্ছে আমরাও পারব। আন্তর্জাতিক অঙ্গনে বাংলাদেশের সিনেমা আরও প্রসারিত হবে সেই বিশ্বাস রাখি।

কণ্ঠশিল্পী কণা বলেন, সত্যি কথা বলতে, প্রত্যাশার চেয়েও বেশকিছু পেলাম। যেখানে হাসি-ঠাট্টা, বেদনা রয়েছে। আর আবহ সঙ্গীত বেশ দারুণ লেগেছে।আর শেষ দৃশ্য দেখে আমি কান্না ধরে রাখতে পারিনি এটুকুই বলব।

শুধু তারকারাই নয়, দর্শকদের ক্ষেত্রেও দেখা গেছে একই চিত্র। ‘মুজিব’ সিনেমায় জাতির জনকের চরিত্রে অভিনয় করেছেন আরিফিন শুভ। প্রেক্ষাগৃহে সিনেমা দেখে এই তারকাকে কাছে পেয়ে তাকে জড়িয়ে ধরে কাঁদতেও দেখা গেছে দর্শকদের।

খ্যাতিমান পরিচালক শ্যাম বেনেগাল পরিচালিত বাংলাদেশ-ভারতের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত এই সিনেমাটি এখন পর্যন্ত যারাই দেখেছেন প্রশংসা করেছেন। বিশেষ করে মুক্তিযুদ্ধকালীন বঙ্গবন্ধুর পরিবারের বন্দিজীবন, ১৯৭৫-এর ১৫ আগস্ট রাতে সপরিবারে মুজিবকে হত্যার দৃশ্য কাঁদিয়েছে দর্শকদের।

 

  গুগল নিউজে ফলো করে আজকের প্রসঙ্গ এর সাথে থাকুন
  গুগল নিউজে ফলো করে আজকের প্রসঙ্গ এর সাথে থাকুন